July 14, 2024, 1:58 am
শিরোনামঃ
শিরোনামঃ
নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের ৭, ৮, ৯নং ওয়ার্ডে প্রথম যুব কাউন্সিলর রাকিবুল ইসলাম ইফতি যতোই প্রতিকূলতা আসুক না কেন যতটুকু সম্ভব ভালোবাসার বিনিয়োগ করুন:- ছাত্রলীগ নেতা কাউসার। মুক্তিযোদ্ধাদের প্রতি কেন এত অসম্মান! শিবপুরে স্মার্ট শিক্ষা প্রতিষ্ঠান কর্মচারী ফেডারেশনের সম্মেলন অনুষ্ঠিত সামাজিক সংগঠন ‘ধলেশ্বরী তীরে’র উদ্যোগে বৃক্ষরোপন ও বিতরণ কর্মসূচি অনুষ্ঠিত সর্বজনীন পেনশন স্কিম সংক্রান্ত অবহিতকরণ সভা রায়পুরায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের পুরস্কার বিতরণ রায়পুরায় নবনির্মিত শহীদ মিনারের শুভ উদ্বোধন করেন ফরিদা ইয়াসমিন শিবপুরে কৃষকলীগের বৃক্ষ রোপন কর্মসূচীর উদ্বাধন রায়পুরায় নদীতে ভাসছিল অজ্ঞাতনামা মরদেহ, যা বলছে এলাকায় বাসী..!!
নোটিশঃ
আমাদের সাইট ভিজিট করার জন্য আপনাকে অনেক ধন্যবাদ। নিউজ শেয়ার করে আমাদের সাথে থাকুন।

সোনারগাঁয়ে গরুর মাংস ব্যবসায়ীরা বেপরোয়া

মীমরাজ হোসেন রাহুল
July 14, 2024, 1:58 am

আগামীকালের ঈদুর ফেতরকে সামনে রেখে বেপরোয়া হয়ে উঠেছের গরুর মাংস ব্যবসায়ীরা। আগে যেখানে গরুর মাংসের দাম ছিলো ৭২০টাকা কেজি সেই মাংস এখন নিচ্ছে ৮ শত টাকা কেজি। একদিনে ব্যবধানে বেড়েছে ১শত টাকা।

এছাড়া বাজারে গরু ও খাসির মাংসের দোকান গুলোতে ক্রেতাদের বেশ ভিড় লক্ষ্য করা গেছে। দাম বৃদ্ধি পেলেও দিশেহারা ক্রেতারা অতিরিক্ত মূল্যেই মাংস কিনতে বাধ্য হচ্ছেন। বর্তমান বাজারে গরুর মাংস প্রতি কেজি ৮০০/৮৫০ টাকা টাকায় বিক্রি হচ্ছে, যা গত সপ্তাহে বিক্রি হয়েছিলো ৭২০ টাকায়। বাজারে খাসির মাংস প্রতি কেজি ১২৫০ টাকা। এছাড়া ভেড়া ও বকরি প্রতি কেজি ১০৫০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

মোগরাপাড়া চৌরাস্তা বাজারে মাংস বিক্রেতা মোঃ সাব্বির জানায়, পূর্বেই বলেছিলাম ঈদের আগে মাংসের দাম বৃদ্ধি পাবে। গত সপ্তাহে মাংস প্রতি কেজি ৭২০ টাকায় বেচেছি। এখন ৮০০ টাকা কেজি তে মাংস বিক্রি করতে হচ্ছে।

বাজারে মুরগী বিক্রেতা সোবহান মিয়া জানান, বাজারে দৈনিক মুরগীর দাম উঠা-নামা করে। গত সপ্তাহেও দাম কম ছিল। ঈদের আগে বাজারে মুরগীর চাহিদা থাকে। এখন খামারিরা দাম বাড়িয়ে বিক্রি করছে। যে জন্য আমাদের বেশি মূল্যে বিক্রি করতে হচ্ছে।

বাজারে আসা ক্রেতা রিয়াজুল ইসলাম জানান, আমি বেসরকারী প্রতিষ্ঠানে স্বল্প বেতনে চাকুরি করে। এ বেতনে পরিবারের খরচ চালানো বেশ কষ্টসাধ্য। কিন্তু ঈদ উপলক্ষ্যে বাজার যা করব, সব কিছুরই দাম বেশি। সে কবে ৫ কেজি গরুর খেয়েছি। আমার ছেলেটার জন্য শুধু মাংসের বাজারে আসা, তা নইলে আসতাম না। কি হবে মাংস না খেলে!

এ বিষয়ে সোনারগাঁ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আবদুল্লাল আল মাহফুজ জানান, মাংসের দাম বেশী দেয়া দু:খ জনক ব্যাপার। দেখি এ বিষয়ে কি করা হয়।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এরকম আরো নিউজ
এক ক্লিকে বিভাগের খবর